জনি ডেপ নয়, স্ত্রী অ্যাম্বার হার্ডই তাকে মারধর করত

0 27

বিনোদন ডেস্ক : ‘পাইরেটস অব দ্য ক্যারিবিয়ান’খ্যাত হলিউড তারকা জনি ডেপ নাকি তার সাবেক স্ত্রী অ্যাম্বার হার্ডকে নির্যাতন করতেন। একটি ব্রিটিশ ট্যাবলয়েডের এরকম অভিযোগের বিরুদ্ধে দাঁড়িয়েছেন জনি ডেপ। তার নিরাপত্তা রক্ষী জানিয়েছেন, আসলে বাস্তব ঘটনা উল্টো। বরং স্ত্রীর মারধরের হাত থেকেই তিনি জনিকে বাঁচিয়েছেন অনেকবার।

জনপ্রিয় অভিনেতা জনি ডেপ সাবেক স্ত্রী অ্যাম্বারের কাছে নির্যাতিত ছিলেন। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে বারবার উঠে এসেছে এরকম খবর। যদিও ২০১৭ সালেই তাদের সংসারের পাঠ চুকে গেছে, কিন্তু তার রেশ রয়ে গেছে এখনও।

জনি ডেপের নিরাপত্তা রক্ষী হিসেবে এক দশক ধরে কাজ করেছেন সিন বেট। তিনি দাবি করেছেন, দায়িত্ব পালনকালে তিনি প্রায়ই উদ্ধত-মারমুখী অ্যাম্বার হার্ডের আক্রমণ থেকে অভিনেতা জনিকে সরিয়ে নিতেন।
সম্প্রতি জনি ডেপের আইনজীবী অভিনেতার সাবেক দুই প্রেমিকা উইনোনা রাইডার ও ভেনেসা প্যারাডিসের বক্তব্যও প্রকাশ করেছেন। তারা উভয়েই জানান, জনিকে তারা খুব দয়ালু ও প্রেমময় হিসেবেই দেখেছেন। সহিংসতার যে অভিযোগ অ্যাম্বার তুলেছেন তার সঙ্গে জনির প্রকৃতি মেলাতে পারছেন না তারা।

উল্লেখ্য, ব্রিটিশ পত্রিকা দ্য সান ও এর নির্বাহী সম্পাদক ড্যান উটনের নামে মামলা করেছেন জনি ডেপ। ২০১৮ সালের এপ্রিলে পত্রিকাটি এই জনপ্রিয় অভিনেতাকে ‘স্ত্রী নির্যাতনকারী’ উল্লেখ করে নিবন্ধ প্রকাশ করেছিল। সাবেক স্ত্রী অ্যাম্বারকে মারধরের এ অভিযোগ তীব্রভাবে অস্বীকার করেন ডেপ। বরং অ্যাম্বার যে জনিকে পেটাতেন তার অনেক প্রমাণও তার কাছে আছে বলে দাবি করেন অভিনেতা। এরকম একটি অডিও ক্লিপও প্রকাশিত হয়েছিল গত বছর।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.